1. admin@bdnews88.com : admin :
অভাবে বিক্রি করতে হয়েছিল বাড়ি, আজ নিজের দক্ষতায় ২১ লাখ কোটি টাকার মালিক - বিডি নিউজ
July 2, 2022, 6:04 pm
Breaking News:

অভাবে বিক্রি করতে হয়েছিল বাড়ি, আজ নিজের দক্ষতায় ২১ লাখ কোটি টাকার মালিক

  • Update Time : Friday, April 29, 2022
  • 62 Time View
বিক্রি করতে হয়েছিল বাড়ি আজ নিজের দক্ষতায় ২১ লাখ কোটি টাকার মালিক

জীবনে সাফল্য লাভ করতে হলে তার জন্য কঠোর পরিশ্রম করতে হয় এবং নিজের কাজের প্রতি থাকে ভালোবাসা। কিন্তু এসবের মধ্যে যদি কাজের প্রতি আবেগ মিশে থাকে তাহলে সে জীবনের এমন এক উচ্চতায় পৌঁছে যায় যেখানে সে অবাক করে দেয় সারা বিশ্বকেই। এই তালিকার নয়া সংযোজন ইলন মাস্ক।

যিনি স্পেসএক্স, পেপাল ​​এবং টেসলা মোটরসের মতো বড় কোম্পানির প্রতিষ্ঠাতা। তিনি এমন এক ব্যক্তি যিনি সারা বিশ্বের অনেক তরুণ তরুণীদের কাছে অনুপ্রেরনার সৃষ্টি করেছেন। ইলন মাস্ক দক্ষিণ আফ্রিকার প্রিটোরিয়ায় 28 জুন, 1971 সালে জন্মগ্রহণ করেন। তিন ভাইবোনের মধ্যে তিনি সবার বড়। তার পিতার নাম এরোল মাস্ক। যিনি একজন ব্রিটিশ বংশোদ্ভূত দক্ষিণ আফ্রিকান। মাস্কের বাবা নিজেও একজন ইঞ্জিনিয়ার ছিলেন।এবং প্রায় 9 বছর বয়সে বাবার কাছে ইলন মাস্ক তার প্রথম ব্যক্তিগত কম্পিউটার পান। সেখানেই হাতেখড়ি হয় তার।

খুবই অল্প বয়সে একরকম তার বাবার জন্যই ইলন মাস্ক প্রোগ্রামিংয়ে খুব আগ্রহী হয়ে ওঠেন।এবং এরপরেই ইলন মাস্ক প্রোগ্রামিং শেখার জন্য কঠোর পরিশ্রম শুরু করেন। মাত্র 12 বছর বয়সেই, ইলন মাস্ক তার প্রথম কম্পিউটার গেম ব্লাস্টার তৈরি করেন এবং তারপরে সেই গেমটি বিক্রি প্রায় 500 ডলার আয় করেন। এবং এরপর মাত্র 17 বছর বয়সেই তার বাড়ি ছেড়েদেন। এবং পাড়ি দেন মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে।

1989 সালে, ইলন মাস্ক কানাডায় তার আত্মীয়দের সাথে বসবাস করতেন। এরপরই মাস্ক কানাডার নাগরিকত্ব নেন। সেসময় টাকার অভাবে অল্প বেতনে কাজও শুরু করেন তিনি। মাত্র 19 বছর বয়সে, ইলন মাস্ক অন্টারিওর কিংস্টনে কুইন্স বিশ্ববিদ্যালয়ে আবারো নিজের পড়াশোনা শুরু করেন। এরপর 1992 সালে তিনি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে চলে যান।

এরপর তিনি তৈরি করেন পেপাল (PayPal)। যা বিরাট সাফল্য পেতে শুরু করে। ধীরে ধীরে মানুষের মধ্যে বিখ্যাত হতে শুরু করেন মাস্ক। কিন্তু এখানেই থেমে থাকেননি তিনি। পেপাল-র সাফল্যের পর ইলন মাস্কের পরবর্তী লক্ষ্য ছিল মহাকাশ। এজন্য তিনি স্থাপনা করেন Space X কোম্পানির। যেখানে তার লক্ষ্যই ছিল বাণিজ্যিকভাবে মহাকাশ ভ্রমণের জন্য মহাকাশযান তৈরি করা এবং মঙ্গলে একটি মানব বসতি স্থাপন করা।

এছাড়া তার তৈরি আরেকটি বড় কোম্পানির নাম টেসলা মোটরস। আসলে 2003 সালে মার্টিন এবারহার্ড এবং মার্ক টারপিং তৈরি করেন টেসলা মোটরস। প্রথম থেকেই, এই সংস্থাটি বৈদ্যুতিক যানবাহনের প্রস্তুতকারক হিসাবে নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করে। এরপর ইলন মাস্ক 2004 সালে যোগ দেন টেসলা তে। এবং সেখানে প্রায় 70 মিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ করেন।

বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে সফল এবং ধনী ব্যক্তি হিসেবে ইলন মাস্কের নাম উঠে আসে। এবং তার নিজেরই প্রায় 212 বিলিয়ন ডলারের সম্পদ রয়েছে। অনেকেই আশা করছেন যে ইলন মাস্ক কয়েক বছরের মধ্যে বিশ্বের প্রথম ট্রিলিওনিয়ার হবেন।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

More News Of This Category